তাজা বার্তা | logo

৯ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ২৩শে জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

১৫ দিনও টিকল না নেইমারের মায়ের প্রেম!

প্রকাশিতঃ এপ্রিল ২৬, ২০২০, ১৮:৫২

১৫ দিনও টিকল না নেইমারের মায়ের প্রেম!

কদিন আগেই নতুন করে প্রেমের খবর দেন ব্রাজিল তারকা নেইমারের মা নাদিন গনসালভেস। নিজের ছেলে নেইমারের চেয়ে ছয় বছরের ছোট থিয়াগো রামোসের সঙ্গে সম্পর্কে জড়ান তিনি। নতুন প্রেমের জন্য মাকে শুভেচ্ছাও জানিয়েছিলেন নেইমার। কিন্তু এই সম্পর্ক বেশি দূর গড়াল না। মাত্র ১৫ দিনেই ভেঙে গেল নেইমারের মায়ের নতুন প্রেম। জানা যায়, নেইমারের মা নিজেই এই সম্পর্ক ভেঙে দিয়েছেন। কারণ প্রেমিক রামোস সমকামীতায় জড়িত ছিলেন।

সংবাদমাধ্যম দ্য সানের প্রতিবেদন অনুযায়ী, রামোস হলেন একজন মডেল। যিনি সমকামীতায় জড়িত। নাদিনের সঙ্গে পরিচয় হওয়ার আগেই নেইমারের ব্যক্তিগত রাঁধুনির সঙ্গেও সম্পর্ক ছিল রামোসের। অভিযোগ ওঠে নেইমারের মা নাদিনের প্রেমে পড়ার আগে একাধিক পুরুষের সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়েছিলেন রামোস। ব্রাজিলের জনপ্রিয় অভিনেতা থেকে শুরু করে ব্রাজিলিয়ান স্ট্যান্ড-আপ কমেডিয়ান কার্লিনহোজ মাইয়ার সঙ্গেও তাঁর সম্পর্ক ছিল।

রামোস সম্পর্কে সবকিছু জানার পর নেইমার নিজেই মাকে সম্পর্ক ভাঙার জন্য চাপ দেন। এরপর নেইমারের মা রামোসের সঙ্গে সব সম্পর্ক ভেঙে দেন।

দুসপ্তাহ আগে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে নতুন প্রেমের বিষয়টি নিজেই জানিয়েছেন নাদিন। প্রেমিকের সঙ্গে একটি ছবি পোস্ট করেন নেইমারের মা। ছবিটির ক্যাপশনে লেখেন, ‘এর (এই সম্পর্কের) কোনো ব্যাখ্যা নেই। এমনই থাকতে চাই।’

ছবির নিচে মাকে শুভকামনা জানিয়ে নেইমার লিখেন, ‘সুখী হও মা। তোমাকে ভালোবাসি।’ শুভ কামনা জানিয়েছেন নেইমারের বাবা ওয়াগনার রিবেরিওর।

নাদিনের প্রেমিক রামোস আগে থেকেই নেইমারের ভক্ত ছিলেন। ২০১৭ সালে নেইমারকে খুদে বার্তা পাঠিয়ে রামোস সেটা জানিয়েছিলেন, ‘নেইমার তুমি ফ্যান্টাস্টিক। তোমার মতো একজনের ভক্ত হওয়ার আবেগটা কীভাবে প্রকাশ করব জানি না। আমি তোমার খেলা দেখি, অনুপ্রাণিত হই। আমি তোমার সাথে দেখা করতে চাই। আর আমি স্বপ্নবাজ তরুণ। একদিন তোমার সঙ্গে দেখা করবই। আর নিজের লক্ষ্য পূরণ না হওয়া পর্যন্ত হাল ছাড়ি না আমি।’

২০১৬ সালে নেইমারের বাবা ওয়াগনার রিবেরিওর সঙ্গে বিবাহ বিচ্ছেদ হয় নাদিনের। এরপর থেকে নেইমার ও তাঁর বাবা রিবেরিও একসঙ্গেই থাকেন। অবশ্য মায়ের সঙ্গেও সম্পর্ক আছে নেইমারের।


© তাজা বার্তা ২০২১

Developed by XOFT IT