তাজা বার্তা | logo

৩রা মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ১৭ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

ফরিদপুরে করোনা উপসর্গ নিয়ে ঢাকার ফুচকা ব্যবসায়ীর মৃত্যু

প্রকাশিতঃ এপ্রিল ১৫, ২০২০, ১৫:১৪

ফরিদপুরে করোনা উপসর্গ নিয়ে ঢাকার ফুচকা ব্যবসায়ীর মৃত্যু

করোনাভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলার চান্দ্রা ইউনিয়নের ছরিলদা গ্রামে শাহিন মাতুব্বর (১৮) নামের এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। তিনি ওই এলাকার হারুন মাতুব্বরের ছেলে। গতকাল মঙ্গলবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে তাঁর মৃত্যু হয়।

শাহিন মাতুব্বর ১০ দিন আগে ঢাকা থেকে বাড়ি আসে। তিনি ঢাকায় ফুচকা ব্যবসার সঙ্গে জড়িত ছিল বলে জানা গেছে।

প্রতিবেশী মো. লাবু বলেন, মৃত ওই যুবক ১০ দিন আগে ঢাকা থেকে বাড়ি আসে। এরপর তিনি জ্বর, শ্বাসকষ্ট ও গলা ব্যথা নিয়ে রাত ৩টার দিকে মারা যান। আমরা চেয়ারম্যান ও স্থানীয় থানাকে বিষয়টি জানিয়েছি। তবে চেয়ারম্যান দ্রুত মৃতদেহ দাফনের কথা বলেছেন।

চান্দ্রা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান গিয়াস উদ্দিন দ্রুত দাফনের কথা অস্বীকার করে বলেন, ‘ওই পরিবারটি নিহতের এ ধরনের উপসর্গ ছিল এটা গোপন করে রেখে ছিলেন। আমি বিষয়টি জানার সঙ্গে সঙ্গে থানাকে বিষয়টি জানিয়েছি।’

ভাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রকিবুর রহমান খান জানান, মৃতের নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকায় পাঠানো হবে। আর নিয়ম অনুযায়ী প্রশাসনের তত্ত্বাবধানে তাঁর লাশ দাফনের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এর আগে দুজনের শরীরে করোনাভাইরাস পজিটিভ আসায় নগরকান্দা উপজেলাকে লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে।

জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে, গত ২৪ ঘণ্টায় হোম কোয়ারেন্টিনে গেছেন তিনজন এবং ছাড়পত্র পেয়েছেন ১০ জন। এ পর্যন্ত হোম কোয়ারেন্টিনে গেছেন এক হাজার ৮৪১ জন। ছাড়পত্র পেয়েছেন এক হাজার ৬৬৬ জন। বর্তমানে হোম কোয়ারেন্টিনে  আছেন ১৭৫ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ২০ জনের নমুনা ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। সর্বমোট ৮১ জনের নমুনা ঢাকায় পাঠানো হয়েছিল। এর মধ্যে ৫৪ জনের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। ২৫ জনের রিপোর্ট এখনো আসেনি। জেলায় কোভিড-১৯ পজেটিভের সংখ্যা দুজন।

এদিকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সূত্র জানায়, সেখানে ছয়জন রোগী আইসোলেশনে রয়েছে।


© তাজা বার্তা ২০২১

Developed by XOFT IT